কিভাবে ফেসবুক গ্রুপ সদস্য বৃদ্ধি করে ব্যবসা করা যায়

আপনার ব্যবসা শুরু করার জন্য একটি ফেসবুক গ্রুপ তৈরি করার কথা ভাবছেন? আপনি সঠিক জায়গায় আছেন! আরও পড়ুন আমরা কিভাবে এটা করি!

আমরা আমাদের গ্রুপ কিভাবে বৃদ্ধি করেছি এবং কেন আপনার ও করা উচিত সে বিষয়ে একটি কেস স্টাডি শেয়ার করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি!

আমাদের ফেসবুক গ্রুপ বৃদ্ধির সময় আমরা যে সব কম পরিচিত এবং চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন হয়েছি তা ১০ মিনিটের জেনে ফেলুন।

এই পদ্ধতি ব্যবহার করার পর, আমাদের ফেসবুক গ্রুপের সদস্য সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে, কিন্তু সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে, আমাদের এনগেজমেন্ট বৃদ্ধি পেয়েছে। টাকা ইনকাম করার সহজ উপায় চাইলে।

তবুও, যখন কমিউনিটির কথা আসে, এটা সংখ্যার ব্যাপার না। এটা বেক্তি আর অনুভূতির ব্যাপার। যখন একই মূল্যবোধের মানুষ একত্রিত হয় এবং একে অপরকে সাহায্য করে, তখনই দারুন মজার ঘটনা ঘটে। আর তখনই আমাদের মনে করিয়ে দেওয়া হয় কেন আমরা আমাদের কাজকে ভালোবাসি এবং প্রেরণা পাই।

ফেসবুক গ্রুপে সক্রিয় ইউজার বৃদ্ধি

আমাদের ফেসবুক গ্রুপের মাধ্যমে, আমরা আমাদের ক্লায়েন্টদের আরো ভালোভাবে জানতে, তাদের বিশেষ সুবিধা দিতে এবং ভাল ভাইব শেয়ার করতে চেয়েছিলাম! আমরা এমন একটি কমিউনিটি তৈরি করতে চেয়েছিলাম যেখানে আমরা আমাদের কাজ শেয়ার করতে পারি এবং প্রতিক্রিয়া পেতে পারি: নতুন প্রযুক্তি নিয়ে কথা বলা, বেটা লঞ্চে তাড়াতাড়ি নলেজ প্রদান করা, আপনার ডিজাইনের জন্য নতুন আপডেট এবং আইডিয়া শেয়ার করা।

কেন ব্যবসার জন্য ফেসবুক গ্রুপ তৈরি করবেন?

কিভাবে আপনার নিজস্ব Facebook গ্রুপ বৃদ্ধি করতে হয় তা দেখানোর আগে, দেখা যাক কিভাবে একটি ফেসবুক গ্রুপ আপনার ব্যবসাকে সাহায্য করতে পারে এবং কেন আপনার এটা করা উচিত।

২০১৮ সালের পরিসংখ্যান দেখাচ্ছে যে এক বিলিয়নেরও বেশি মানুষ ফেসবুক গ্রুপের সদস্য। এদের মধ্যে ১০% প্রয়োজনীয় কমিউনিটির, যা ফেসবুকে কারো অভিজ্ঞতার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অংশ হয়ে উঠছে।
২০১৭ সাল থেকে ফেসবুক বিজনেস পেজ, ফেসবুক গ্রুপ তৈরি করতে পারে, “আপনার ফ্যানদের কেন্দ্র করে ফ্যান ক্লাব এবং গ্রুপ” করা হয়।

আরও পড়ুন – বাড়িতে বসে বাবসা করার আইডিয়া

ব্যবসার জন্য একটি Facebook গ্রুপ ব্যবহার করার আরো উপায় আছে, তাই আপনাকে প্রথমে সিদ্ধান্ত নিতে হবে যে আপনি এর মাধ্যমে কি পেতে চান। এটা নির্ভর করে আপনার ব্যবসার ধরন এবং আপনার কমিউনিটি কিভাবে কাজ করে তার উপর। আপনি টাকা আয়ের উদ্দেশ্যে একটি Facebook গ্রুপ ব্যবহার করতে পারেন, গ্রাহক সেবার জন্য এটি ব্যবহার করতে পারেন অথবা সামগ্রিকভাবে আপনার ব্যবসা উন্নত করতে পারেন।

মার্কেটিং এর জন্য একটি ফেসবুক গ্রুপ ব্যবহার

যদিও এটি কয়েক বছর ধরে চলে আসছে, তবুও ফেসবুক এখনো সবচেয়ে জনপ্রিয় এবং দক্ষ সামাজিক প্রচার মাধ্যম প্লাটফর্ম যেখানে ৭৯% আমেরিকান এটি ব্যবহার করছে।

গত কয়েক বছরে, গ্রুপআরো ভাল এনগেজমেন্ট রেট এবং হাই অরগানিক রিচ হয়েছে, তাই তাদের একটি মারকেতিং হাতিয়ার হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

ফেসবুকের পেজের অরগানিক রিচ কমে যাওয়ার পর থেকে অনেক মার্কেটার এর গ্রুপের প্রতি তাদের মনোযোগ আকর্ষণ করেছে। এখানে, এনগেজমেন্ট এবং রিচ একটি ফেসবুক পেজের তুলনায় বেশি, তাই এটা ভাবা হত, যে মার্ক্টিকেটিং এর উদ্দেশে গ্রুপ ব্যবহার করা হবে কিনা।

যখনই কেউ এই গ্রুপে পোস্ট করে, তখন ব্যবহারকারীরা একটি নোটিফিকেশন পায়, তাই আপনার যদি ইভেন্ট বা নতুন রিলিজের মত গুরুত্বপূর্ণ আপডেট থাকে, তাহলে আপনি সেগুলো গ্রুপের মাধ্যমে প্রকাশ করতে পারেন, এবং আপনি নিশ্চিত করতে পারেন যে আপনার নিশ কমিউনিটি সেগুলো দেখতে পায়।

কিন্তু একটা ক্যাচাল আছে, যদি আপনি শুধু নিজের কথা বলেন, তাহলে ব্যবহারকারীরা বিরক্ত হয়ে গ্রুপ ছেড়ে চলে যাবে।

হুমায়ন আজাদ

আপনার ব্যবসা এবং আপনার গ্রাহক উভয়ের ভালু দিতে হবে, Facebook গ্রুপ ব্যবহার করার কিছু উপায় এখানে দেওয়া হল।

কাস্টমার সার্ভিসের জন্য একটি ফেসবুক গ্রুপ ব্যবহার করা

আপনার যদি এমন কোন ব্যবসা থাকে যার একটি কাস্টমার সার্ভিস ডিপার্টমেন্টের প্রয়োজন হয়, এবং ব্যবহারকারীরা সমস্যা সমাধান বা বৈশিষ্ট্যগুলি কিভাবে কাজ করে তা জিজ্ঞাসা করার জন্য উপায় খোঁজেন, তাহলে একটি Facebook গ্রুপ আপনার জন্য আদর্শ হতে পারে।

যদিও এটা আপনার কাস্টমার সার্ভিস ডিপার্টমেন্টকে আলাদা করার জন্য নয়। যাইহোক, অনেক সময় ব্যবহারকারী একটি গ্রুপ সদস্যের প্রশ্নের উত্তর পেতে পারেন। এইভাবে, সময়ের সাথে সাথে, আপনার Facebook গ্রুপ আপনার গ্রাহক সেবার কাজ সহজ করতে পারে, যেহেতু ব্যবহারকারীরা একে অপরকে সাহায্য করা শুরু করবে, আরো দ্রুত প্রাসঙ্গিক উত্তর পেয়ে যাবে। ফলে গ্রুপের জনপ্রিয়তা বাড়বে।

উদাহরণস্বরূপ, ফেসবুকের হেল্প কমিউনিটি একই নীতিতে কাজ করে।

মানুষ তাদের প্রশ্ন করতে পারে এবং একই সমস্যার সম্মুখীন অন্যান্য ব্যবহারকারীদের কাছ থেকে উত্তর পেতে পারে।

ফিডব্যাক গ্রহণ করুন

কখনও কখনও আপনার পণ্য বা আপনার ব্যবসার অন্যান্য দিক সম্পর্কে আপনার ইউজার দের কাছ থেকে মতামতের প্রয়োজন হয়। এবং নোতুন কোন আপডেট সম্পর্কে ইউজারদের মতামত নিতে পারবেন।

এটি করার মাধ্যমে, আপনি একটি ধারণা পেতে পারেন কিভাবে আপনার শ্রোতা নতুন পণ্য বা বৈশিষ্ট্য কিভাবে গ্রহণ করতে যাচ্ছে এবং চালু করা হবে কি না সিদ্ধান্ত নিতে পারেন, কিন্তু তার চেয়েও গুরুত্বপূর্ণ, আপনি কি উন্নতি করতে পারেন।

ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডরদের একটি কমিউনিটি গড়ে তুলুন

Facebook গ্রুপের সাথে, আপনি সম্ভাব্য ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডরদের সাথে আপনার সম্পর্ক গড়ে সুযোগ আছে। আপনার ব্র্যান্ড, পণ্য বা সেবা সম্পর্কে যত বেশি মানুষ জানতে পারবে, ততই তারা এটি নোতুন ইউজারদের কে অবহিত করতে পারবে।

এছাড়াও আপনি ইন্টারভিউ পরিচালনা করতে পারেন, আপনার পণ্য প্রদর্শন করতে পারেন অথবা ব্যবহারকারীর অভিজ্ঞতা জানতে পারবেন যা প্রকৃতপক্ষে আপনার গ্রোথ হ্যাকিং এ হেল্প করবে।

কনটেন্ট স্ত্রাটেজি

নোতুন নোতুন কনটেন্ট ও ইউজার এনাল্যসিস করতে হেল্প করবে।

ব্যবহারকারীদের কাছ থেকে আলোচনা শোনা অথবা জরিপ থেকে আপনি যে ফলাফল পেয়েছেন তা বিশ্লেষণ করলে আপনাকে প্রয়োজনীয় ডাটা পেয়ে যাবেন ফিউচার এর জন্য।

ফেসবুক গ্রুপ বড় করার উপায় কী?

প্রচুর পোস্ট করতে হবে। নিয়মিত সময় ধরে করা লাগবে। আর অনেক মডারেটর রাখবেন। রুচিসম্মত, প্রয়োজনীয় পোস্ট করবেন।

ফেসবুক গ্রুপ ব্যবহার করার জন্য কি কোনও অ্যাপস আছে

আমার জানা মতে এমন কোনো আলাদা app নাই যেটা দিয়ে ফেবু গ্রুপ ব্যবহার করা যায়।

একটি ফেসবুক গ্রুপ কিভাবে জনপ্রিয় করে তোলা যায়

আপনি আসলে কি ভাবে এটি মানুষের সামনে উপস্থাপন করতে চান , কেউ মজার মজার ভিডিও অথবা তথ্য দিয়ে গ্রুপ কে গ্রো করে তুলে , আবার কেউ শিক্ষনীয় বিষয়ে নিয়ে গ্রুকে গ্রো করে।

আমার একটি ফেসবুক গ্রুপ আছে, যার সদস্য সংখ্যা প্রায় 115k। এই গ্রুপ থেকে কি উপার্জন করা সম্ভব

গ্রুপটা মূলত কোন বিষয় নিয়ে খোলা হয়েছে সেটার উপর নির্ভর করবে, উপার্জন করা সম্ভব কি না।

আশা করি লেখাটি ভালো লেগেছে।